Academic Calendar of Department of History of Arts

শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগ (১৯৬৩)

শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগ চারুকলা অনুষদের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিভাগ। বর্তমান যুগে, বিশেষ করে সারা বিশ্বে প্রাতিষ্ঠানিক শিল্পচর্চা সম্প্রসারণের ধারাবাহিকতায় শিল্পকলার উৎপত্তি ও ক্রম-বিকাশের ইতিহাস জানা, উপাদান ও করণ-কৌশলের প্রয়োগ ও অগ্রগতি সম্বন্ধে সম্যক জ্ঞানলাভ, মানবসমাজ, শিল্প-সংস্কৃতি, প্রকৃতি-পরিবেশসহ ঐতিহ্য ও বিজ্ঞান ইত্যাদি সবকিছু সম্বন্ধেই শিল্পী বা শিল্পকলার শিক্ষার্থীদের জ্ঞানার্জন করা প্রায় অপরিহার্য। এই পরিপ্রেক্ষিত বিবেচনা করেই শিল্পকলার সম্পর্কিত তত্ত্বীয় বিষয়সমূহ পাঠাদানের উদ্দেশ্যে সৃষ্ট শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগ।

তৎকালীন চারুকলা শিক্ষায়তনে শিল্পকলার ইতিহাস বিষয়ে পাঠ্যক্রমের সূচনা ঘটেছিল ১৯৬৩ সনে। তারই ধারাবহিকতায় অনিবার্যতার মধ্য দিয়ে একটি স্বতন্ত্র পূর্ণাঙ্গ তাত্ত্বিক শাখা হিসেবে এই বিভাগ প্রতিষ্ঠিত হয়। প্রতিকূলতা ও সুযোগের স্বল্পতা সত্ত্বেও বিভাগের সার্বিক কার্যক্রম ইতিবাচক পদক্ষেপে এগিয়ে চলেছে। অদূর ভবিষ্যতে বাংলাদেশের শিল্পাঙ্গনে তাত্ত্বিক বিষয়াদি ও শিল্পকলার ইতিহাসের ক্ষেত্রে এই বিভাগটি নিজস্ব ভূমিকা রাখবে তার বিস্তর সম্ভাবনা রয়েছে।

১৯৯১ সালে ২ বছর মেয়াদি এম.এফ.এ কোর্স চালুর মাধ্যমে ‘শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগ’ প্রতিষ্ঠিত হয়। পরবর্তীকালে ২০০১ সালে ৪ বছর মেয়াদি বি.এফ.এ সম্মান কোর্স এবং ২০১২ সাল থেকে এম.ফিল, পিএইচ.ডি চালু হয়।

১৯৬৩ সালে ‘গভর্ণমেন্ট আর্ট ইনস্টিটিউট’ যখন সরকারি ডিগ্রি কলেজে রূপান্তরিত হয় তখন স্বাভাবিক ভাবেই অন্যান্য ব্যবহারিক কোর্সের পাশাপাশি তত্ত্বীয় কোর্সের অন্তর্ভূক্তির প্রয়োজন হয়ে পড়ে। ফলত সমাজবিদ্যা এবং ইংরেজি সহ ‘শিল্পকলার ইতিহাস’ তত্ত্বীয় বিষয় হিসেবে পাঠ্যক্রমে সংযোজিত হয়।

‘শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগ’টি চারুকলা অনুষদের একমাত্র তত্ত্বীয় বিভাগ। এখানে ৪ বছর মেয়াদি বি.এফ.এ সম্মান কোর্সে ৩৪০০ নম্বর (১৩৬ ক্রেডিট) এবং দু’বছর মেয়াদি এম.এফ.এ কোর্সে ১৫০০ নম্বর (৬০ ক্রেডিট) পড়ালেখা করা হয়, যা থিওরিটিক্যাল বিষয়সমূহের সমন্বয়ে বিন্যস্ত রয়েছে। জাতীয়, আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের বিভিন্ন যুগ-বিভাগ অনুযায়ী বিশ্বশিল্পকলার প্রায় সকল অংশই এই সিলেবাসে সন্নিবেশিত হয়েছে।