ঢাবি রোকেয়া হল অ্যালামনাই এসোসিয়েশন: বর্ণাঢ্য আয়োজনে ৫ম পুনর্মিলনী উৎসব পালিত

“সুবর্ণ স্মৃতির মধুর আনন্দে এসো মিলি মোরা সৃজনী ছন্দে” প্রতিপাদ্য নিয়ে বর্ণাঢ্য আয়োজনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় রোকেয়া হল অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের ৫ম পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত ২ নভেম্বর ২০১৮ শুক্রবার সকালে  বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র মিলনায়তনে দিনব্যাপী এই পুনর্মিলনী উৎসবের উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

রোকেয়া হল অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের সভাপতি অধ্যাপক রওশন আরা ফিরোজের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট মনোবিজ্ঞানী ও ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস, এগ্রিকালচার এন্ড টেকনোলজির উপ-উপাচার্য অধ্যাপক হামিদা আখতার। বিশেষ অতিথি ছিলেন ঢাকা ইউনিভার্সিটি অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের সভাপতি এ. কে. আজাদ। 

উদ্বোধনী বক্তব্য উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, রোকেয়া হল এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়- উভয়ই স্বতন্ত্র অভিধায় বিশেষভাবে গর্বের। ১৯৫৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকে হলটি বহু গুণী ব্যক্তিত্ব তৈরি করেছে। এসব মহীয়সী নারীর মাধ্যমে বাংলাদেশ বর্তমানে এই পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। তিনি বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ১৯২১ সালে প্রতিষ্ঠিত হলেও রোকেয়া হল প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৫৬ সালে। তারপরও রোকেয়া হলের অনবদ্য অবদান রয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অবদান দুটি পর্যায়ে বিন্যস্ত। প্রথম পর্যায়টি ১৯২১ থেকে ১৯৪৮ সাল। জাতির মনস্তাত্ত্বিক উন্নয়ন এবং আদর্শ ও দর্শনের উপযুক্ততা ধারণ করার মানসকাঠামো বিনির্মাণ হয়েছে এই সময়ে। এর দ্বিতীয় পর্যায় ১৯৪৮ থেকে ১৯৫২ সাল। এ সময়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে অসাম্প্রদায়িক চেতনার বিকাশ ঘটেছিল। এ চেতনাকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য রোকেয়া হলের অবদান রয়েছে। উপাচার্য আরও বলেন, বর্তমানে এ দেশে নারী নেতৃত্ব যেভাবে এগিয়েছে, সেটা কোনোভাবেই সম্ভব হতো না যদি না রোকেয়া হলের শিক্ষার্থীরা সমাজ বিনির্মাণে অবদান না রাখতেন। এই হলের অ্যালামনাইদের সঙ্গে বর্তমান প্রজন্মের যোগাযোগের ফলে যে মূল্যবোধের বিনিময় হয়েছে, তা অনুজদের জীবনে পাথেয় হিসেবে কাজ করবে।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য প্রদান করেন রোকেয়া হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. জিনাত হুদা। স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন হল রোকেয়া হল অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মরিয়ম বেগম এবং ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন সহসভাপতি অধ্যাপক সালমা আখতার।

অনুষ্ঠানে এশিয়াটিক সোসাইটির সভাপতি অধ্যাপক মাহফুজা খানমকে সম্মাননা দেওয়া হয়।
----------------
পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত)
জনসংযোগ দফতর
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়


“সুবর্ণ স্মৃতির মধুর আনন্দে এসো মিলি মোরা সৃজনী ছন্দে” প্রতিপাদ্য নিয়ে বর্ণাঢ্য আয়োজনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় রোকেয়া হল অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের ৫ম পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত ২ নভেম্বর ২০১৮ শুক্রবার সকালে  বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র মিলনায়তনে দিনব্যাপী এই পুনর্মিলনী উৎসবের উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। (ছবি : ঢাবি জনসংযোগ) 

News and Events
  • ‘গণহত্যা দিবস’ উপলক্ষে ঢাবি’র কর্মসূচী

    25/03/2019

    Read more...
  • মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে ঢাবি’র কর্মসূচী

    25/03/2019

    Read more...
  • Gauhati University VC calls on DU VC

    24/03/2019

    Read more...
  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সোসিওলজি অ্যালামনাই এসোসিয়েশনের কার্যনির্বাহী কমিটির এক সভা অনুষ্ঠিত

    24/03/2019

    Read more...
  • ঢাবি-এ গণহত্যা বিষয়ক ২দিন-ব্যাপী আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু

    24/03/2019

    Read more...
  • Two-day Int’l Workshop on Antibiotics begins at DU

    24/03/2019

    Read more...
  • Seminar on ‘Water and Deltas’ held at DU

    22/03/2019

    Read more...